‘অপেক্ষায় আছি নতুন কিছুর জন্য’

‘অপেক্ষায় আছি নতুন কিছুর জন্য’

ছোট পর্দার জনপ্রিয় অভিনেতা অপূর্ব। চলতি সময়ে টিভি নাটকে যে কজন অভিনেতা ব্যস্ত সময় পার করছেন তাদের মধ্যে অন্যতম তিনি। এই সময়ের প্রায় সব জনপ্রিয় অভিনেত্রীর সঙ্গে অভিনয়ে দেখা যায় তাকে। তবে  মেহজাবিন চৌধুরী ও তানজিন তিশা এবং আরো কয়েকজনের সঙ্গে দর্শক অপূর্বকে বেশি দেখছেন। সিন্ডিকেটের মধ্য দিয়েই তারা কাজ করছেন বলে অনেকে মন্তব্য করেন। নাট্যাঙ্গনে বিষয়টি নিয়ে বেশ আলোচনা-সমালোচনাও শোনা যায়। সত্যি কি নাট্যাঙ্গনে এখন সিন্ডিকেট বলে কিছু আছে? সেই সিন্ডিকেটে কি অপূর্ব যুক্ত? এ প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, আমার কাছে সিন্ডিকেট বিষয়টি হাস্যকর। এখানে সিন্ডিকেটের কিছু নেই।একজন নির্মাতা নিজেই শিল্পী নির্বাচন করেন। সেখানে অন্য কোনো শিল্পীর হস্তক্ষেপ থাকে বলে আমি মনে করি না। তবে এটি সত্যি, দর্শক অনেক সময় জুটি প্রথা পছন্দ করেন। সে ক্ষেত্রে হয়তো আমাকে কয়েকজন অভিনেত্রীর সঙ্গে বেশি দেখা যায়। আর এ কারণেই তাদের সঙ্গে  নির্মাতারা আমাকে বেশি ভাবেন। আমি সবার জন্য একটা কথা বলতে চাই, গল্পের প্রয়োজনে যে কারো সঙ্গে আমি অভিনয় করতে পারি। খন্ড ও ধারাবাহিক নাটক  দুটিতেই অপূর্ব এ সময়ে সমান ব্যস্ত বলে জানান। সম্প্রতি মিজানুর রহমান আরিয়ানের ‘এ সুইট লাভ স্টোরি’ শিরোনামের একটি নাটকের শুটিং শেষ করেছেন তিনি। এতে তার বিপরীতে অভিনয় করেছেন মেহজাবিন চৌধুরী। এ নির্মাতার ‘বড় ছেলে’ শিরোনামের নাটকের মধ্য দিয়ে অপূর্ব ও মেহজাবিন জুটি দারুণ আলোচনায় আসেন। অর্প্বূ বলেন, ‘এ সুইট লাভ স্টোরি’ নাটকটি প্রেমের গল্পে নির্মাণ করা হয়েছে। নাম শুনলেই বোঝা যায় এটির গল্প কেমন হবে। তবে আরিয়ান বরাবরই তার নির্মাণ ও গল্প বলাতে নতুনত্ব রাখেন। এ নাটকেও তার ব্যতিক্রম ঘটেনি। খুব শিগগিরই চ্যানেল আইতে প্রচারে আসবে অপূর্ব অভিনীত ‘প্রিয় প্রতিবেশী’ শিরোনামের একটি ধারাবাহিক নাটক। এটির নির্মাতা আবু হায়াত মাহমুদ। এছাড়া তার হাতে আছে ‘নীল ঘূর্নি’ শিরোনামের আরো একটি ধারাবাহিক। এটি নির্মাণ করছেন সৈয়দ শাকিল। এ নাটকে অপূর্বকে দ্বৈত চরিত্রে দেখা যাবে। এরমধ্যে একটি চরিত্র থাকছে নেতিবাচক।  ক্যারিয়ারের এ সময়ে নেতিবাচক চরিত্রে অভিনয় করার কারণ কি? অপূর্ব বলেন, দীর্ঘদিন ধরে দর্শক আমাকে রোমান্টিক গল্পের নাটকেই বেশি দেখছেন। অনেক দিন পর ফের নেতিবাচক চরিত্রে অভিনয় করছি। এর আগে ‘রমিজের আয়না’ ধারাবাহিকে এমন চরিত্রে দর্শক আমাকে দেখেছেন। নিজেকে ভাঙার জন্যই এমন চরিত্রে কাজ করছি। টিভি নাটকের বাইরে ক্যারিয়ারে একটি মাত্র চলচ্চিত্রে দেখা গেছে অপূর্বকে। ২০১৫ সালে মুক্তি পাওয়া এ ছবির নাম ‘গ্যাংস্টার রিটার্নস’। এরপর এখন পর্যন্ত নতুন কোনো চলচ্চিত্রের খবরে নেই তিনি। জনপ্রিয়তার এমন শীর্ষে থেকেও চলচ্চিত্র থেকে দূরে কেন? এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ছোট পর্দায় আমি নিয়মিত অভিনয় করছি। এর মানে এই নয়, বড় পর্দায় আমার আগ্রহ নেই। আবার চলচ্চিত্রে অভিনয় করার জন্য আমি প্রস্তুত আছি। এরমধ্যে কয়েকজন নির্মাতা আমার সঙ্গে যোগাযোগও করেছেন। কিন্তু আমাকে যে ধরনের গল্প ও চরিত্রের সঙ্গে যাবে তেমন চলচ্চিত্র হাতে পাচ্ছি না। যার কারণে আমার ইচ্ছে থাকলেও চলচ্চিত্রে কাজ করা হচ্ছে না। এখন আমাদের চলচ্চিত্রের গল্পে পরিবর্তন এসেছে। অপেক্ষায় আছি নতুন কিছুর জন্য। আলাপনের সবশেষে এ অভিনেতা নিজের ব্যস্ততার কথা বলতে গিয়ে জানান, মাসে প্রায় আঠারো দিন তিনি শুটিং করেন। অভিনেতা হিসেবে আগামীতে আরো অনেক দূর যাওয়ার ইচ্ছেও পোষণ করেন তিনি।

Loading Facebook Comments ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *