গাইবান্ধায় রোটা ভাইরাসে ডায়রিয়ার প্রকোপ

গাইবান্ধায় রোটা ভাইরাসে ডায়রিয়ার প্রকোপ

ছাদেকুল ইসলাম রুবেল,গাইবান্ধা প্রতিনিধি ঃ গাইবান্ধায় হঠাৎ বাড়ছে শীতজনিত রোটা ভাইরাসে শিশুদের ডায়রিয়ার প্রকোপ। গত ২৪ ঘণ্টায় হাসপাতালে ৫৯ জন শিশু ভর্তি হয়েছে। শুক্রবার (৩১ জানুয়ারি) বিকেল পর্যন্ত গত এক সপ্তাহে জেলা শহরের বিভিন্ন এলাকা থেকে তিন শতাধিক শিশু হাসপাতালে ভর্তি হয়ে চিকিৎসা নিয়েছে।
সরেজমিনে দেখা যায়, গাইবান্ধা সদর আধুনিক হাসপাতালে ডায়রিয়া আক্রান্ত রোগীদের জন্য মাত্র ২০টি আসন রয়েছে। কিন্তু প্রতিদিন শীতজনিত রোটা ভাইরাসে ডায়রিয়ার প্রকোপ বাড়ার কারণে হাসপাতালে ৪০ থেকে ৫০ জন শিশু ভর্তি হচ্ছে। বেডে জায়গা না থাকায় হাসপাতালের মেঝে ও বারান্দায় অনেকে চিকিৎসা নিচ্ছে।
আব্দুল মমিন নামে এক অভিভাবক বলেন, হঠাৎ করে সন্তানের পাতলা পায়খানার সঙ্গে বমি শুরু হয়ে ডায়রিয়া দেখা দেয়। তাই হাসপাতালে নিয়ে এসেছেন।

মালেকা বেগম নামে এক নারী জানান, ঘনঘন বমি ও পায়খানার কারণে তার বাচ্চাকে হাসপাতালে ভর্তি করেছেন। হাসপাতালে ভর্তির পর স্যালাইন দিয়েছে কিন্তু এখনও কোনো উন্নতি হয়নি।
গাইবান্ধা জেলা সদর আধুনিক হাসপাতালের ভারপ্রাপ্ত আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. শেখ সুলতান আহম্মদ জানান, শীতকালের শেষে রোটা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব দেখা দেয়। পাঁচ বছরের নিচের শিশুরা এই ডায়রিয়ার বেশি আক্রান্ত হয়। সাধারণত এটি ওষুধে ভালো হয় না। দুই-তিনদিন, সর্বোচ্চ সাতদিন পর্যন্ত এ ডায়রিয়া থাকতে পারে।

Loading Facebook Comments ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *