ট্রাম্পের নির্বাচনের প্রতিবাদের ছবির পরিবর্তনে ক্ষমা চাইলো যুক্তরাষ্ট্র

ট্রাম্পের নির্বাচনের প্রতিবাদের ছবির পরিবর্তনে ক্ষমা চাইলো যুক্তরাষ্ট্র

ডোনাল্ড ট্রাম্পকে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের প্রতিবাদে ওয়াশিংটনসহ যুক্তরাষ্ট্রের বিভিন্ন স্থানে ২০১৭ সালে হওয়া ‘উইমেন’স মার্চ’ বা নারীদের মিছিলের একটি প্রতিবাদের ছবি পরিবর্তন আনার জন্য ক্ষমা চেয়েছে দেশটির জাতীয় আর্কাইভ।

শনিবার এক বিবৃতিতে মার্কিন জাতীয় আর্কাইভ কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, তারা সবসময় দেশের সংরক্ষণযোগ্য সব উপাদান কোনো রকমের পরিবর্তন ছাড়া রক্ষায় সম্পূর্ণ প্রতিজ্ঞাবদ্ধ। এই ছবিটি কোনো রকম আর্কাইভাল রেকর্ড নয়। এটি ছিল প্রচারের উদ্দেশ্যে গ্রাফিক হিসেবে ব্যবহার করার জন্য আমাদের লাইসেন্স করা একটি ছবি। কিন্তু তারপরও ছবিটিতে পরিবর্তন আনাটা একটি ভুল কাজ ছিল।সংস্থাটি আরো জানিয়েছে, যত দ্রুত সম্ভব বিকৃত ছবিটির পরিবর্তে আসল ছবি সাইটে বসানো হবে। ভবিষ্যতে এমন ঘটনা এড়াতে সংস্থাটির প্রদর্শনী নীতিমালা ও প্রক্রিয়া বিস্তারিতভাবে রিভিউ করার আশ্বাসও দেয়া হয়েছে।বিবিসির তথ্যানুযায়ী, ওয়াশিংটন পোস্টের এক প্রতিবেদনের মাধ্যমে প্রথম এই ছবি এডিট বা পরিবর্তনের বিষয়টি প্রকাশ পায়। ছবিগুলোতে ট্রাম্পের সমালোচনা করে বা ট্রাম্পকে গালি দিয়ে যত পোস্টার, প্ল্যাকার্ড বা ব্যানার রয়েছে, সবগুলো থেকে হয় ট্রাম্পের নামটি মুছে ফেলা হয়েছে, অথবা নামের অংশটি ব্লার করে দেয়া হয়েছে বলে জানা গেছে।

ওয়াশিংটন পোস্ট আর্কাইভে রাখা ছবিটি প্রতিবেদনে দেখা গেছে, যেখানে ‘God Hates Trump’ সাইন থেকে ট্রাম্পের নামটা সরিয়ে দেয়া হয়েছে। এছাড়া আরো কিছু স্লোগান বা উক্তি থেকেও তার নাম সরিয়ে ফেলা হয়।

ট্রাম্পের ক্ষমতা গ্রহণের পরপরই অনুষ্ঠিত হওয়া এই মার্চের সময় নারীদের ব্যক্তিগত অংশে কোনো নাম বা ছবি আঁকার চিহ্নগুলোও ঝাপসা করে দেয়া হয়েছিল।

জলবায়ু পরিবর্তন, বেতনের সামঞ্জস্যতা এবং প্রজনন অধিকারের মতো বিষয়গুলোতে দৃষ্টি নিবদ্ধ রেখে মহিলাদের মার্চ সমাবেশে শনিবার নারীদের চতুর্থ বার্ষিক মিছিলে ওয়াশিংটন এবং সারা দেশের বিভিন্ন স্থানে হাজারো মানুষ একত্রিত হওয়ার শুরু করার কিছু সময়ের মধ্যেই আর্কাইভরা ক্ষমা চেয়ে এ বিবৃতি প্রকাশ করেন।

Loading Facebook Comments ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *