ডিমলা স্বাস্থ্য ও পঃ পঃ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে স্ত্রীর করা মামলা নিয়ে আইনজীবীর ওপর হামলা!

ডিমলা স্বাস্থ্য ও পঃ পঃ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে স্ত্রীর করা মামলা নিয়ে আইনজীবীর ওপর হামলা!

জেলা ক্রাইম রিপোর্টার নীলফামারী: নীলফামারীতে আদালত চত্তরে একটি মামলার বিবাদি পক্ষের হয়ে বাদি পক্ষের আইনজীবীর ওপর হামলার ঘটনায় রাতে থানায় মামলা দায়ের করেছেন আহত আইনজীবী আজাহারুল ইসলাম।
আইনজীবী আজাহারুল ইসলাম জানান, পঞ্চগড় জেলার দেবীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসক ফারহানা আক্তার তার স্বামী নীলফামারীর ডিমলা উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা সারোয়ার আলমের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আদালতে একটি মামলা দায়ের করেন। বাদি পক্ষের হয়ে মামলাটি পরিচালনা করছেন আজহারুল।
কিন্তু রোববার(১৯ জানুয়ারি)মামলাটির ধার্য তারিখ ছিল। মামলা চলাকালে আমি আদালতে ছিলাম। এসময় আদালত চত্ত¡রে বিবাদী ডা. সারোয়ার আলমের পক্ষ নিয়ে এক ব্যক্তি আমার সহকারী আইনজীবী ও আইনজীবী সহকারীকে হুমকী প্রদান করেন। পরিচয় জানতে চাইলে পুলিশের এসআই রমজান আলী।পরে নিশ্চিত হওয়া যায় তিনি নিরঞ্জন রায়।তিনি জলঢাকা উপজেলার রথের বাজার কমিউনিটি ক্লিনিকের হেলথ প্রোপাইটার(সিএইচসিপি)। আমার সহকারী আইনজীরা ভুয়া তার পরিচয় প্রদানের বিষয়ে জানতে চাইলে নিরঞ্জন চড়াও হয়ে আইনজীদের ওপর হামলা চলায়। ওই হামলায় আমিসহ আইনজীবী আকবর আলী, শিক্ষানবিশ আইনজীবী শাহজাহান, আবুবক্কর সিদ্দিক ও সেখানে উপস্থিত অটোবাইক চালক খয়বর আহত হন। এঘটনায় সেই রাতে চার জনকে আসামী করে থানায় অভিযোগ দায়ের করেছি।
একই কথা জানান আইনজীবী আকবর আলীও।
এ ব্যাপারে অভিযুক্ত কমিউনিটি হেলথ প্রোপাইটার(সিএইচসিপি) নিরঞ্জন বলেন,আমি স্বাস্থ্য বিভাগে চাকুরী করি। স্যারের (ডাঃ সারোয়ার) সঙ্গে পরিচয় থাকায় তাঁর মামলার কারণে সেখানে আমি গিয়েছিলাম।আইনজীবিরা এসময়ে হামলা চালিয়ে আমাকে আহত করেছেন।
এবিষয়ে জেলা আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক অক্ষয় কুমার রায় বলেন, বিষয়টির ব্যাপারে আমি জেনেছি। এব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।
নীলফামারী সদর থানার ওসি মমিনুল ইসলাম বলেন, বিষয়টি তদন্ত করে সে বিষয়ে ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

Loading Facebook Comments ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *