নীলফামারীতে স্বাস্থ্যবিধি না মানায় ১৪টি গণপরিবহনের বিরুদ্ধে মামলা।

মহিনুল ইসলাম সুজন, নীলফামারী॥ নীলফামারীতে স্বাস্থ্যবিধি না মেনে যাত্রি বহনের দায়ে ১৪ গণপরিবহনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের হয়েছে। জেলা ট্রাফিক পুলিশ ও বিআরটিএ বিভাগ জেলা শহরের বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে এসব মামলা দায়ের করেন। এসময় মাস্ক বিহিন যাত্রিদের গণপরিবহন থেকে নামিয়ে মাস্ক পরিধানে বাধ্য করা হয়।
করোনা সংক্রমণ প্রতিরোধে গণপরিবহনের চালক ও যাত্রির শতভাগ মাস্ক নিশ্চিত করণে মঙ্গলবার(১ সেপ্টেম্বর) সকাল থেকে নীলফামারী-সৈয়দপুর সড়কের জেলা শহরের কালিতলা নামক স্থানে অভিযান শুরু করে দুপুর পর্যন্ত শহরের বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে চলাচলকারী ১৪টি গণপরিবহনে বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়।ওই অভিযানে নেতৃত্ব দেন জেলা ট্রাফিক পুলিশের পরির্দশক মোহাম্মদ আজাদ হোসেন খান, নীলফামারী বিআরটিএর সহকারী পরিচালক আব্দুল কুদ্দুস, বিআরটিয়ের মোটরযান পরির্দশক নুরুল ইসলাম ও ট্রাফিক সার্জেন্ট জাহিদুল ইসলাম।
নীলফামারী ট্রাফিক পুলিশের পরির্দশক মোহাম্মদ আজাদ হোসেন খান বলেন, বিভিন্ন গণপরিবহনের চালক মাস্ক পরিধান না করায় এবং মাস্ক বিহিন যাত্রি বহন করায় ১৪টি যানবহনের বিরুদ্ধে ট্রাফিক আইনে মামলা দারে করা হয়েছে। স্বাস্থ্য সচেতনতা সৃষ্টিতে মাস্কবিহিন যাত্রিদের গণপরিবহন থেকে নামিয়ে বিনমূল্যে মাস্ক সরবরাহ ও পরিধানে বাধ্য করা হয়। তিনি বলেন, করোনা পরিস্থিতি শুরু থেকে জেলা পুলিশ সুপার স্যারের নির্দেশে ট্রাফিক বিভাগ স্বাস্থ্য সচেতনতা সৃষ্টিতে কাজ করে আসছে।

Loading Facebook Comments ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *