পলাশবাড়ীতে কুড়িয়ে পাওয়া নবজাতকেরর স্থান হল এক স্বনামধন্য পরিবারের

পলাশবাড়ীতে কুড়িয়ে পাওয়া নবজাতকেরর স্থান হল এক স্বনামধন্য পরিবারের

ছাদেকুল ইসলাম রুবেল,গাইবান্ধা প্রতিনিধি ঃ গাইবান্ধা পলাশবাড়ীতে কুড়িয়ে পাওয়া সদ্য নবজাতকের চিকিৎসার দায়ভার নিয়েছিলেন পুলিশ সুপার প্রকৌশলী আব্দুল মান্নান মিয়া বিপিএম।

গত ১৫-৪-২০১৯ খ্রিঃ গভীর রাতে নবজাতক ছেলে শিশুকে পলাশবাড়ীর মনোহর পুর ইউনিয়ানের গোডাউন বাজার এলাকার একটি ধান ক্ষেতের আইলে ফেলে রেখে যায় শিশুটি রাতভর বৃষ্টির পানিতে ভিজে মৃত্যুর সংগে পাঞ্জা লড়তে থাকে। বিষয়টি সকালে স্থানীয়রা দেখে হরিনাবাড়ী ফারি থানায় খবর দিলে পুলিশ শিশুটি উদ্ধার করে গাইবান্ধা সদর হাসপাতালে ভর্তি করান। পুলিশ সুপার মহোদয় শিশুটির চিকিৎসার ব্যয়ভার বহন করেন।
শিশুটি যখন হাসপাতালে ডাক্তার, দুধমাতা ও পুলিশ পরিবারের ছোঁয়ায় সুস্থ হয়ে উঠে আর বিষয়টি যখন মিডিয়ার কল্যানে সাড়া বিশ্ববাসী জানতে পারে তখন শিশুটির দত্তক নেয়ার জন্য দেশ বিদেশের আনাচে-কানাচে হতে পুলিশ সুপার মহোদয়ের নিকট অনুরোধ আসতে থাকে সেই প্রেক্ষাপটে গাইবান্ধা জেলা পুলিশ শিশুটির সারা জীবনের সার্বিক ভবিষ্যত কল্যানের বিষয় বিবেচনা করে ও আইনগত প্রক্রিয়া শেষে গাইবান্ধার উর্ধ্বতন সরকারি এক সন্তানহীন দম্পতির হাতে তুলে দেয়ার সিদ্ধান্ত হয়।

এর প্রেক্ষিতে রোববার দুপুরে গাইবান্ধা পুলিশ সুপার কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে আনুষ্ঠানিক প্রেস কনফারেন্সের মাধ্যমে শিশুটি কে গাইবান্ধার মানবিক পুলিশ সুপার মহোদয় উর্ধ্বতন সরকারি কর্মকর্তা দম্পতির হাতে তুলে দেন।

Loading Facebook Comments ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *