রংপুরে দুই উদীয়মান নারী ফুটবলারের চিকিৎসা করালেন পুলিশ সুপার

রংপুরে দুই উদীয়মান নারী ফুটবলারের চিকিৎসা করালেন পুলিশ সুপার

ডেস্কঃ রংপুরের নারী ফুটবলারের গ্রাম হিসেবে পরিচিত পালিচড়া গ্রামটি। শহর থেকে প্রায় ১৫ কিলোমিটার দূরের এক প্রত্যন্ত এলাকা সদ্যপুষ্করিনী ইউনিয়নের এ গ্রামটি। এ গ্রামের বেশিরভাগ অধিবাসী পেশায় প্রান্তিক কৃষক কিংবা দিনমজুর। সবাইকে অবাক করে পালিচড়ার সেই কৃষক আর দিনমজুর ঘরের মেয়েরাই একদিন স্কুল ফুটবলে হয় দেশসেরা। ঘরে ঘরে গড়ে উঠে কিছু সম্ভাবনাময় নারী ফুটবলার। এমনই দুই উদীয়মান নারী ফুটবলার নাছরীন ও রুমি। তারা স্বপ্ন দেখে জাতীয় দলে খেলার, বিশ্ব দরবারে নিজেদের প্রমাণ করার। কিন্তু ভাগ্যের নির্মম পরিহাসে, প্রাকটিস করতে গিয়ে হাটুর লিগামেন্ট ছিড়ে যায় নাছরিন ও রুমির। যেখানে কারও ঘরে একবেলা আহার জোটে তো আরেকবেলা কাটে অর্ধাহারে, অনাহারে, সেখানে এই ব্যয়বহুল চিকিৎসা তো অলীক কল্পনা! সব স্বপ্ন ফিকে হয়ে আসে, সম্ভাবনার দুই প্রদীপ নিভে যেতে থাকে। কিন্তু এমন সময় দেবদূত হয়ে আসেন বাংলাদেশ পুলিশের উজ্জ্বল নক্ষত্র, রংপুর জেলা পুলিশের সম্মানিত অভিভাবক, মানবিক পুলিশ সুপার, বিপ্লব কুমার সরকার বিপিএম-বার পিপিএম।

একদিন সদ্যপুষ্করিনীর ইউনিয়নের নয়াপুকুর মাঠে নারী ফুটবলারদের খেলা দেখতে এসে পুলিশ সুপার, রংপুর মহোদয় ইনজুরির বিষয়টি জানতে পেরে সাথে সাথেই দুই নারী ফুটবলারের চিকিৎসার সকল দায়িত্ব নিয়ে নেন। এরই ধারাবাহিকতায় পুলিশ সুপার মহোদয়ের সার্বিক নির্দেশে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার জনাব আবু তৈয়ব মোঃ আরিফ হোসেন ( এ- সার্কেল), রংপুর এর তত্ত্বাবধানে গত ১২/০৮/২০২০ইং রোজ বুধবার ঢাকাস্থ বাংলাদেশ স্পেশালিষ্ট হাসপাতালে এই দুই উদীয়মান নারী ফুটবলার নাসরিন ও রুমির হাটুর লিগামেন্ট সফলভাবে অপারেশন করা হয়। অপারেশনের পর নাসরিন ও রুমি এখন অনেকটাই সুস্থ। তাই তারা এখন স্বপ্ন দেখে স্বাভাবিক জীবনে ফেরার, দুই পায়ে ফুটবল নিয়ে মেতে উঠার, জাতীয় দলে খেলার।

প্রত্যন্ত অঞ্চলের এই অসহায় নারী ফুটবলারদের চিকিৎসার দায়িত্ব নিয়ে তাদের বড় ফুটবলার হওয়ার স্বপ্ন পূরণে এগিয়ে আসার জন্য পুলিশ সুপার, রংপুর মহোদয়ের নিকট কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন দুই ফুটবলারের অভিভাবক, সহ-খেলোয়ার, কোচ ও গ্রামবাসী। এছাড়া রংপুরের বিভিন্ন সচেতন মহল, ক্রীড়ামোদী মানুষ ও ক্রীড়াসংগঠকগণ পুলিশ সুপার বিপ্লব কুমার সরকারের এই মানবিক পদক্ষেপকে সাধুবাদ জানান।

Loading Facebook Comments ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *